ঝালকাঠি রাজাপুরে ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হয়ে শিশু শিক্ষার্থীর মৃত্যু

Spread the love

ঝালকাঠি প্রতিনিধিঃঝালকাঠির রাজাপুরে ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হয়ে সামিয়া আমিন রুশা (৯) নামে এ শিশু শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। শনিবার সকাল ৭টায় বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। রুশা উপজেলার জীবনদাসকাঠি গ্রামের মোঃ রুহুল আমিন এর মেয়ে ও দৈনিক কালের কন্ঠ পত্রিকার উপজেলা প্রতিনিধি মোঃ মেহেদি হাসান জমিস এর ভাগ্নি। সে ঢাকায় মোহাম্মদপুরে ওয়াইডব্লিউসি জুনিয়র গার্লস হাইস্কুলের চতুর্থ শ্রেনীর ছাত্রী ছিলেন। রুশার পরিবার জানায়, রুশা তার পরিবারের সাথে ঢাকায় বসবাস করতেন। কয়েক দিন পূর্বে রুশা ঢাকায় বসে সে জ্বরে আক্রান্ত হয়। ঢাকায় চিকিৎসা নিয়ে শারীরিক অবস্থা স্বাভাবিক হলে বৃহস্পতিবার রাতে (৮ আগস্ট) কোরবানির ঈদে রাজাপুর উপজেলা সদরে নানা বাড়িতে বেড়াতে আসেন। শুক্রবার (৯ আগস্ট) পুনরায় আবার রুশার জ্বর হলে রাজাপুরে থাকা ঝালকাঠি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা মোঃ আবুল খায়ের রাসেল এর স্বরনাপন্য হয়। ডাক্তার রুশাকে দেখে উন্নত চিকিৎসা দেয়ার জন্য দ্রæত বরিশাল নেয়ার পরামর্শ দেয়। রুশার পরিবার শুক্রবার দুপুরেই রুশাকে বরিশাল নিয়ে বেসরকারি রাহাত আনোয়ার মেডিকেলে ভর্তি করে এবং পরিক্ষা-নিরিক্ষা শেষে রুশার ডেঙ্গুজ্বর নিশ্চিত হয়। সেখানে রুশার অবস্থার অবনতি হলে শুক্রবার রাতেই ৮টায় বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে এলে চিকিৎসকরা মুমুশ অবস্থায় তাকে আইসিইউতে রাখে। চিকিৎসকদের বহু চেষ্টার পরে শনিবার সকাল ৬টায় মৃত্যুর সাথে হার মেনে রুশা মনি শেষ নিঃস্বাস ত্যাগ করেন। শনিবার (১০ অগস্ট) আছরবাদ রুশার গ্রামের নিজ বাড়িতে জানাযার নামাজ শেষে পারিবারিক কবর স্থানে লাশ দাফন করা হয়। ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হতে রুশার মৃত্যুতে এলাকায় আতঙ্ক বিরাজ করছে।

Leave a Comment